সখীপুরে সেলিম আল দীন পাঠাগার বইবান্ধব সমাজ বিনির্মাণে আলো ছড়াচ্ছে

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ বই পড়ি নিজেকে গড়ি’ এই স্লোগানে বইবান্ধব সমাজ বিনির্মাণে আলো ছড়াচ্ছে ‘সেলিম আল দীন পাঠাগার।

টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার কচুয়া গ্রামে বইবান্ধব সমাজ নির্মাণের লক্ষ্য নিয়ে পাঠাগারটি প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। অনেক আগে থেকেই পাঠাগারের কার্যক্রম চললেও সম্প্রতি টিনের আধাপাকা ঘর দেয়া হয়েছে নিজস্ব জমিতে। প্রতিদিনই সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত খোলা থাকে পাঠাগারটি। ‘বই পড়ি নিজেকে গড়ি’ এ স্লোগানকে ধারণ করে এগিয়ে যাচ্ছে পাঠারগারটি।

রবীন্দ্র রচনাবলীসহ পাঠাগারে রয়েছে গল্প, উপন্যাস, কবিতা, সাময়িকীসহ কয়েক হাজার বই। গ্রামীণ মনোরম প্রাকৃতিক পরিবেশে পাঠাগারটি গড়ে উঠেছে। খেলাধুলাসহ নানাবিধ সুযোগ সুবিধাও রয়েছে পাঠকের জন্য। সম্পূর্ণ বিনা খরচে পাঠক এখানে বই পড়তে পারবেন। এমনকি বাড়িতেও নিয়ে যাওয়া যাবে। তবে নির্দিষ্ট সময়মত তা ফেরত দিতে হবে।

পাঠাগারের প্রতিষ্ঠাতা ড. হারুন রশীদ বলেন, ‘আমরা এখানে একটি কালচারাল ইউনিভার্সিটি গড়ে তুলবো। তারই অংশ হিসেবে একটি সাংস্কৃতিক বলয় সৃষ্টির চেষ্টা হচ্ছে পাঠাগার প্রতিষ্ঠা। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত বিভাগের প্রতিষ্ঠাতা ও রবীন্দ্রোত্তর কালের শ্রেষ্ঠ নাট্যকার সেলিম আল দীনের নামে এই পাঠাগারটি প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে।

পাঠাগার থেকে মেধাবৃত্তি, ‘রোদ্দুর’নামে সাহিত্য পত্রিকাপ্রকাশসহ নানামুখী সৃজনশীল কর্মকাণ্ড পরিচালিত হচ্ছে। ভবিষ্যতে এর কর্মপরিধি আরও বাড়বে বলে জানান পাঠাগারটি প্রতিষ্ঠাতা ড. হারুন রশীদ। এ ব্যাপারে সবার সহযোগিতাও আশা করছেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap