২৯ বছর পর ইউরোজয়ী ইতালিকে হারিয়ে ট্রফি ঘরে তুলেছে আর্জেন্টিনা

ক্রীড়া ডেস্কঃ ২৯ বছর পর দুই মহাদেশের শ্রেষ্ঠত্বের লড়াইয়ে ইউরোজয়ী ইতালিকে হারিয়ে ট্রফি ঘরে তুলেছে কোপা আমেরিকাজয়ী আর্জেন্টিনা। ৯০ মিনিটের সে রোমাঞ্চকর লড়াইয়ে সেরা নির্বাচিত হয়েছেন লিওনেল মেসি।

ফিনালিসিমার লড়াইয়ে ইংল্যান্ডের বিখ্যাত ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে বুধবার (০১ মে) ইতালিকে ৩-০ গোলের ব্যবধানে হারিয়েছে লিওনেল স্কালোনির শিষ্যরা।

দলের হয়ে একটি করে গোল করেন লাউতারো মার্তিনেজ, অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া ও পাওলো দিবালা। তিন গোলের দুটিতেই অবদান রেখে ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন আর্জেন্টাইন সুপারস্টার।

এদিন ম্যাচের শুরু থেকে শেষ পুরো ৯০ মিনিট মাঠে আধিপত্য করে খেলেন মেসি। গোলবারে তার একের পর এক আক্রমণে দিশেহারা হয়ে পড়ে ইতালি। যখনই পায়ে বল পেয়েছেন পরীক্ষা নিয়েছেন তার পিএসজি সতীর্থ জিয়ানলুইজি ডোনারুম্মার। যদিও ইউরো সেরা গোলকিপার তার সতীর্থকে হতাশ করেছেন প্রতিবারই আক্রমণ প্রতিহত করে।

কিন্তু মেসি সরাসরি গোল তুলে নিতে না পারলেও তার জাতীয় দলের সতীর্থদের দিয়ে গোল করিয়ে জিতে নিয়েছেন বিশ্বসেরার খেতাব।

মেসি দলকে প্রথম সাফল্যের পথ দেখান ম্যাচের ২৮ মিনিটে। প্রতিপক্ষের বাম কর্নার দখলে নিয়ে আক্রমণে ওঠেন আর্জেন্টািইন সুপারস্টার। পায়ের কারিকুরিতে ইতালির রক্ষণভাগের ফুটবলারদের ফাঁকি দিয়ে বল পাঠান লাওতারো মার্তিনেজের উদ্দেশে।

পেনাল্টি এরিয়া থেকে আলতো ছোঁয়ায় বল জালে জড়ান মার্তিনেজ। হাত বাড়িয়ে বল নাগালে পাননি মেসির পিএসজি সতীর্থ জিয়ানলুইজি ডোনরুম্মা।

শেষ অর্ধে উত্তাপ ছড়ায় পিএসজির দুই সতীর্থ মেসি ও ডোনারুম্মার মধ্যে। মেসি বারবার আক্রমণে গিয়ে শট নেন। আর গোলবারে প্রাচীর হয়ে সব চেষ্টা প্রতিহত করে দেন ডোনারুম্মা। ম্যাচের নির্ধারিত সময় শেষে মেসি আরেকবার চেষ্টা চালান গোলের উদ্দেশে। প্রতিপক্ষের ডি বক্সে ঢুকে পড়েছেন, শট নিলেই গোল, এমন সময়ও কেন জানি শটটা নিতে পারলেন না তিনি। শেষে সে গোল করল মাত্র ৪ মিনিটের জন্য মাঠে নামা পাওলো দিবালা। ম্যাচের যোগ করা সময়ের শেষ মুহূর্তে বল পায়ে এগিয়ে যান মেসি। ডি বক্সে ঢুকে শট নিতে গিয়ে তার পা থেকে ফস্কে যায়। পাশে থাকা দিবালা এগিয়ে গিয়ে বল জড়ান জালে।

এদিকে জাতীয় দলের হয়ে দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক শিরোপা জিতে নিল মেসি। আর্জেন্টিনার দীর্ঘ ২৮ বছরের ট্রফির খরা কাটিয়ে গত বছরের জুলাইয়ে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিলকে হারিয়ে জিতে নেন কোপা আমেরিকার ট্রফি। তার ঠিক ১০ মাসের ব্যবধানে আলবিসেলেস্তেদের দ্বিতীয় শিরোপার স্বাদ এনে দেন এই ফুটবল জাদুকর। এবার তার সামনে মিশন কাতার বিশ্বকাপ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap